সবুজ ফুলকপির স্বাস্থ্যগুণ

শুধু শহরেই নয় এখন গ্রামেও পরিচিত সবজি হয়ে ওঠছে সবুজ ফুলকপি বা ব্রকোলি। শীতকালীন এ সবজি খেতে অত্যন্ত সুস্বাদু এবং পুষ্টিমানের দিক থেকেও সমৃদ্ধ। এর চাষও লাভজনক। কারণ খরচ মোটামুটি একই হলেও সাদা রঙের ফুলকপির চেয়ে বাজারে এটির দাম বেশি পাওয়া যায়। সবুজ ফুলকপি সালাদ হিসেবে ব্যবহৃত হয়। দ্য ইউনিভার্সিটি অব ইস্ট এংলিয়ারের এক গবেষণায় বলা হয়েছে, সবুজ রঙের ফুলকপি দেহের ক্ষতিকারক টিস্যু ধ্বংস করে। এতে শরীর সতেজ থাকে। জার্মানির হাইডেলব্যার্গ বিশ্ববিদ্যালয় ক্লিনিকের এক গবেষক জানিয়েছেন, সবুজ ফুলকপি টিউমার দমন করে। এটি হৃদরোগ এবং স্ট্রোকের ঝুঁকিও কমায়৷ ডায়াবেটিস রোগীদের জন্যও সবুজ ফুলকপি দারুণ উপকারী। প্রতি ১০০ গ্রাম সবুজ ফুলকপিতে থাকে Continue reading সবুজ ফুলকপির স্বাস্থ্যগুণ

বেগুনের যে গুণের শেষ নেই

বাঙালির রসনাবিলাসের একটি বিশাল অংশজুড়ে রয়েছে নানা গুণসমৃদ্ধ বেগুন। ভর্তা, ভাজি তো বটেই, বেগুন পোড়া, বিভিন্ন তরকারি, লাবড়া, বেগুনের টক ইত্যাদিও কম জনপ্রিয় নয়! বাংলাদেশে ইফতারের একটি জনপ্রিয় খাবার হলো বেগুনী, যা বেগুন ও বেসন দিয়ে বানানো হয়। সবজি হিসেবে জনপ্রিয়তার কমতি নেই। বারো মাস পাওয়া যায় এবং দাম কম বলে ঠাট্টা করে একে ‘গরিবের খাবার’ বলে ডাকা হয়। বারো মাস পাওয়া গেলেও শীতকালের সবজি হিসেবেই বেগুনকে গণ্য করা হয়। তবে অনেকেই হয়তো জানেন না যে  এই সবজির রয়েছে বহুমাত্রিক গুণাগুণ।  এতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে উপকারি খাদ্য উপাদান। যেমন প্রতি ১০০ গ্রাম বেগুনে রয়েছে – খাদ্যশক্তি- ২৫ কিলোক্যালরি, শর্করা- ৫.৮৮ Continue reading বেগুনের যে গুণের শেষ নেই

জেনে নিন, সাধারন ওলকপির অসাধারন যত গুন!

শীতের এই সময়টাতে সবজি বাজারে বেশ সুলভেই পাওয়া যায় ওলকপি। মিক্সড সবজিতে এর ব্যবহার চলে দারুণভাবে। ভাজি বা ঝোল তরকারিতেও ওলকপির কদর রয়েছে যথেষ্ট। সুলভে পাওয়া সবজিটি আপনার স্বাস্থ্য সুরক্ষায় পালন করে কার্যকরী ভূমিকা। খাদ্য উপযোগী প্রতি ১০০ গ্রাম ওলকপিতে পাবেন খাদ্যশক্তি ৩২ কিলোক্যালরি, কার্বোহাইড্রেটস ৭.১৩ গ্রাম, প্রোটিন ১.৫০ গ্রাম, খাদ্যআঁশ ৩.২ গ্রাম, ফোলেট ১৯৪ মাইক্রোগ্রাম, নিয়াসিন ০.৬০০ মিলিগ্রাম, রিবোফ্লাভিন ০.১০০ মিলিগ্রাম, ভিটামিন এ ১১৫৮৭ আইইউ, ভিটামিন সি ৬০ মিলিগ্রাম, ভিটামিন কে ২৫১ মাইক্রোগ্রাম, সোডিয়াম ৪০ মিলিগ্রাম, পটাসিয়াম ২৯৬ মিলিগ্রাম, ক্যালসিয়াম ১৯০ মিলিগ্রাম, লৌহ ১.১০ মিলিগ্রাম, ম্যাগনেসিয়াম ৩১ মিলিগ্রাম, ফসফরাস ৪২ মিলিগ্রাম, সেলেনিয়াম ১.২ মাইক্রোগ্রাম, জিংক ০.১৯ মিলিগ্রাম। এসব উপাদান Continue reading জেনে নিন, সাধারন ওলকপির অসাধারন যত গুন!

পুঁইশাকের পুষ্টিগুণ ও উপকারিতা !

পুঁইশাক বেশ পুষ্টিকর ও সুস্বাদু। দেশজুড়ে পুঁইশাকের রয়েছে ব্যাপক গ্রহণযোগ্যতা। সহজলভ্য বলে এই শাক কম-বেশি সবার কাছেই প্রিয়। স্বাস্থ্য সুরক্ষায় এর রয়েছে অনেক পুষ্টিগুণ। চলুন পুঁই শাকের স্বাস্থ্য উপকারিতা সম্পর্কে জানার চেষ্টা করি। বর্জ্য পদার্থের মাধ্যমে শরীরের রোগজীবাণু দেহের বাইরে যায়। কোনো কারণে সঠিকভাবে নিষ্কাশন হতে না পারলে বদহজম, গ্যাস, অ্যাসিডিটিসহ নানা সমস্যা তৈরি হয়। এ সমস্যা থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য পুঁইশাক অন্যতম। পুঁইশাকে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে আঁশ, যা কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করে, দেহের বর্জ্য সুষ্ঠুভাবে বাইরে যেতে সাহায্য করে। এ শাকে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন `এ` এবং `সি`, যা ত্বকের রোগজীবাণু দূর করে, বৃদ্ধি ও বর্ধনে সাহায্য করে, চোখের পুষ্টি Continue reading পুঁইশাকের পুষ্টিগুণ ও উপকারিতা !

কাঁচকলার দারুণ পুষ্টিগুণ

সবজির তালিকায় কাঁচকলা থাকে প্রায় বছর জুড়ে। ভাজি, ভর্তা বা ঝোলে কাঁচকলার ব্যবহার চলে। অন্যান্য তরকারিতে বাধা থাকলেও রোগীর পথ্য হিসেবে কাঁচকলার প্রাধান্যই বেশি। যেকোনো পেটের অসুখ বা বড় কোনো রোগে আরোগ্যের সময় অধিকাংশ ডাক্তারের নির্দেশও খেতে হয় এই সবজি। প্রাতি ১০০ গ্রাম কাঁচকলা পাবেন খাদ্যশক্তি ১২২ কিলোক্যালরি, কার্বোহাইড্রেটস ৩১.৮৯ গ্রাম, প্রোটিন ১.৩০ গ্রাম, ফ্যাট ০.৩৭ গ্রাম, খাদ্যআঁশ ২.৩০ গ্রাম, ফোলেট ২২ মাইক্রোগ্রাম, নিয়াসিন ০.৬৮৬ মিলিগ্রাম, রিবোফ্রাভিন ০.০৫৪ মিলিগ্রাম, থায়ামিন ০.০৫২ মিলিগ্রাম, ভিটামিন-এ ১১২৭ আইইউ, ভিটামিন-সি ১৮.৪ মিলিগ্রাম, ভিটামিন-ই ০.১৪ মিলিগ্রাম, ভিটামিন-কে ০.৭ মাইক্রোগ্রাম, সোডিয়াম ৪ মিলিগ্রাম, পটাসিয়াম ৪৯৯ মিলিগ্রাম, ক্যালসিয়াম ৩ মিলিগ্রাম, লৌহ ০.৬০ মিলিগ্রাম, ম্যাগনেসিয়াম ৩৭ মিলিগ্রাম, ফসফরাস Continue reading কাঁচকলার দারুণ পুষ্টিগুণ

নিরীহ পালং শাকের যে জাদুকরী গুণগুলো আপনার সুস্বাস্থ্যের অন্যতম নিয়ামক !

পালংকে বলা হয় শাকের রাজা। রাজাই বটে! কেননা এই শাকের রয়েছে বহু গুণাগুণ। সারা পৃথিবীতেই অত্যন্ত সুপরিচিত পালং শাক। বর্ষার শেষে পালং শাকের চাষ করা হয় এবং শীতকালে শাক হিসেবে সংগ্রহ করা হয়। পালং শাক অত্যন্ত পুষ্টিমানসমৃদ্ধ শাক। প্রতি ১০০ গ্রাম পালং শাকে আছে ২৩ কিলোক্যালরি খাদ্যশক্তি, কার্বোহাইট্রেড ৩.৬ গ্রাম, আঁশ ৪.২ গ্রাম, চিনি ০.৪ গ্রাম, প্রোটিন ২.২ গ্রাম, ভিটামিন ‘এ’ ৪৬৯ মাইক্রোগ্রাম-৯৪০০১৪ ইউনিট, বিটাকেরোটিন, ৫৬২৬ মাইক্রোগ্রাম লিউটিন, জাঞ্ছিন ১২.১৯ মি. গ্রাম, ফোলেট (বি৯) ১৯৬ মাইক্রোগ্রাম, ভিটামিন সি ২৮ মি. গ্রাম, ভিটামিন কে ৪৬৩ মাইক্রোগ্রাম, ক্যালসিয়াম ৯৯ মি. গ্রাম, আয়রন ২.৭ মি. গ্রাম। নতুন এক গবেষণায় পালং শাকের এ গুণের Continue reading নিরীহ পালং শাকের যে জাদুকরী গুণগুলো আপনার সুস্বাস্থ্যের অন্যতম নিয়ামক !