কেন সকালে খালি পেটে গরম পানি পান করবেন?

পানি পানের উপকারিতা আমরা সবাই জানি। কিন্তু সেই পানি ঠাণ্ডা না হয়ে হালকা গরম হলে তা আমাদের শরীরের জন্য বেশি উপকারি। খাদ্য গ্রহণের পর ঠাণ্ডা পানি পান করলে খাদ্যের সাথে থাকা চর্বিগুলো জমিয়ে ফেলে। পৃথিবীর সবথেকে প্রচীন দুই চিকিৎসাশাস্ত্র, ভারতের আয়ুর্বেদ এবং চীনা ইউনানি চিকিৎসাবিদ্যা অনুসারে আমাদের শরীরের ভালো-মন্দ অনেকাংশেই নির্ভর করে কী ধরনের পানি খাওয়া হচ্ছে এবং কতটা পরিমাণে খাওয়া হচ্ছে তার ওপর। কারণ খেয়াল করে যদি দেখেন, তাহলে বুঝতে পারবেন আমাদের শরীরের সিংহভাগই পানি দিয়ে তৈরি। তাই তো পর্যাপ্ত পানি পান করা জরুরি। তবে বিষয়টা এখানেই থেমে থাকে না। প্রাচীন এবং আধুনিক, উভয় চিকিৎসা বিজ্ঞানই মেনে নিয়েছে ঠাণ্ডা Continue reading কেন সকালে খালি পেটে গরম পানি পান করবেন?

একসঙ্গে যেসব ফল খাওয়া উচিত নয়

স্বাস্থ্য রক্ষায় সঠিক খাবার নির্বাচন খুবই জরুরি। আবার অনেকে স্বাস্থ্য সচেতন ফাস্টফুড এড়িয়ে যান। কিন্তু আপনি জানেন কি, কিছু কিছু খাবার একসঙ্গে খাওয়া ফাস্টফুডের চেয়েও ক্ষতিকর হতে পারে? অনেকেই ফল খেয়ে পানি খান না, কেউ আবার রাতের বেলায় শাক খান না। এসব বিষয় কি আদৌ ঠিক, কীভাবেই বা এমন ধারণা চালু হলো? এ সম্পর্কে বিশেষজ্ঞরা কী বলেন। খাদ্য ও পুষ্টিবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটের প্রতিবেদনে জানানো হয়, ‘ফ্রিজে যত ফল-সবজি আছে সব কেটে, অল্প লেবুর রস আর লবণ ছিটিয়ে দিলেই তা স্বাস্থ্যকর হয়ে যাবে- এমন নাও হতে পারে।’ সালাদ বানানোর ক্ষেত্রে ফলকে ভাগ করতে হবে টক, মিষ্টি ও পানসে এই স্বাদ অনুযায়ী। Continue reading একসঙ্গে যেসব ফল খাওয়া উচিত নয়

গরমে জন্ডিসের আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি

প্রবল তাপে কিছুটা স্বস্তি দিচ্ছে বিভিন্ন ধরণের ফল,  লেবু দেওয়া ঠান্ডা জলের সরবত, বরফ দেওয়া রঙিন জল আর হরেক রঙের আইসক্রিম।  আর এই স্বস্তিই ডেকে আনছে বিপদ। চিকিৎসকেরা জানান, গরমে পানিবাহিত রোগে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি থাকে। এ বছর তা আরও বেড়েছে।  সঙ্গে সর্দি-কাশি-জ্বর লেগেই রয়েছে। শিশু-রোগ বিশেষজ্ঞেরা জানিয়েছেন, একেবারে ছোটদের জন্ডিসের প্রকোপ তেমন নেই।  কারণ, তাদের বেশির ভাগেরই হেপাটাইটিস এ এবং ই প্রতিষেধক টিকাকরণ হয়েছে।  সমস্যা বেশি কিশোর-কিশোরীদের মধ্যে।  কারণ, বছর দশেক আগেও হেপাটাইটিস এ এবং ই-এর টিকাকরণ নিয়ে বেশি সচেতনতা ছিল না।  তা ছাড়া, এই বয়সি ছেলেমেয়েদের মধ্যে স্কুল থেকে ফেরার পথে রঙিন সরবত, আইসক্রিম খাওয়ার প্রবণতা সব চেয়ে Continue reading গরমে জন্ডিসের আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি

দিনে নিয়ম করে ১৫ মিনিট হাসুন

হাসতে ভুলে গেছেন? টেনশন, চাপ আপনার হাসি শুষে নিয়েছে? মন খুলে হাসুন। যত পারেন হাসুন। প্রাণ খুলে হাসুন। যত হাসবেন, তত বাড়বে আয়ু। হার্ট থাকবে চাঙ্গা। এমনটাই দাবি বিশেষজ্ঞদের। জন হপকিন্স ইউনিভার্সিটি মেডিক্যাল স্কুলের সাম্প্রতিক গবেষণা বলছে, হাসলে আয়ু বাড়ে। হার্ট ভাল থাকে। ওজন কমায়। শরীরের প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। হজম ভাল হয়। ভাল থাকে ফুসফুস। শ্বাস-প্রশ্বাস স্বাভাবিক হয়। ব্যথা কমায়। নরওয়ের সাম্প্রতিক গবেষণা বলছে, যাঁদের সেন্স অফ হিউমার প্রখর, যাঁরা সবসময় আশাবাদী, তাঁরা বাকিদের থেকে ৫৫ শতাংশ বেশি বাঁচেন। দিনে ১৫ মিনিট হাসুন। ফলে, শরীরে হ্যাপি হরমোনের ক্ষরণ হয়। ডিপ্রেশন কমে। সম্পর্কের উন্নতি হয়। সম্পর্ক ভাল থাকে। মন খুলে হাসলে Continue reading দিনে নিয়ম করে ১৫ মিনিট হাসুন

যে পাতার রসে কিডনির পাথর গলে যাবে

তুলসী সবুজ রঙের গুল্মজাতীয় একটি উপকারী উদ্ভিদ। এ গাছের পাতায় বহু রোগ সারানোর উপকারী গুণ রয়েছে। তুলসীপাতার রস বা চা প্রতিদিন একগ্লাস করে পান করলে, আমাদের কিডনিতে পাথর হওয়ার শঙ্কা কমে যায়। আর যদি কিডনিতে পাথর জমে তাহলে তুলসী পাতার রস টানা ৬ মাস পান করলে সেই তা গলে প্রস্রাবের সঙ্গে বেরিয়ে যায়। এছাড়া সর্দি, কাশি, কৃমি, প্রস্রাবে জ্বালা কমায়, হজমকারক ও কফ গলাতে দারুণ কাজ করে তুলসীপাতা। এটি ক্ষত সারাতে এন্টিসেপটিক হিসেবেও কাজ করে। তুলসিপাতা দিয়ে চা ও মিশ্রণ তৈরির কয়েকটি প্রস্তুত প্রণালী পাঠকদের সামনে তুলে ধরা হলো: তুলসী পানি : উপকরণ : দুই কাপ পানি ও কয়েকটি পাতা। Continue reading যে পাতার রসে কিডনির পাথর গলে যাবে

হার্ট ভালো রাখতে যা মেনে চলা উচিত

সুস্থ থাকার জন্য ও হার্টের স্বাস্থ্য ভাল রাখতে মানসিক সুস্থতা ও আবেগের উপর নিয়ন্ত্রণ রাখাও গুরুত্বপূর্ণ। তিনটি ইমোশন কন্ট্রোল করলেই সুস্থ থাকতে পারে হার্ট। ১) রাগ গবেষকরা জানাচ্ছেন অতিরিক্ত রাগ বা রাগ পুষে রাখার কারণে হার্ট অ্যাটাক পর্যন্ত হতে পারে। রাগের মতো নেগেটিভ ইমোশন আমাদের অস্থির করে তোলেও রক্তচাপ বাড়িয়ে দেয়। ফলে রক্ত জমাট বাঁধার সম্ভাবনা বাড়ে। তাই কিছু এক্সারসাইজের পাশাপাশি রাগ নিয়ন্ত্রণ করলে রক্তে ভাল কোলেস্টেরলের মাত্রা বাড়ে, রক্তচাপ কমে ও হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি কমে। ২) অবসাদ হার্টের বিভিন্ন সমস্যার সঙ্গে অবসাদ, উৎকণ্ঠা, স্ট্রেসের সম্পর্ক খুব গভীর। অনেক দিন ধরে অবসাদে ভুগলে অবশ্যই হার্টের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করান বা হার্টের Continue reading হার্ট ভালো রাখতে যা মেনে চলা উচিত

শরীরকে হেলদি ও ফিট রাখতে ডায়েটে রাখুন এই ৫ খাবার

শরীরকে হেলদি ও ফিট রাখতে রোজ ডায়েটে এই ৫টি খাবার থাকলেই হবে। এমনই বলছেন বিশেষজ্ঞরা। আপেল: আপেলে থাকে প্রয়োজনীয় ফাইবার, কার্বস ও ভিটামিন। যা শরীরকে হেলদি ও ফিট রাখে। ডিম : ডিমে থাকে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন। দিনের যেকোনও সময় আপনি ডিম খেতে পারেন। শরীরে কোষ মেরামতিতে সাহায্য করে ডিম। দুধ : সকালে এক গ্লাস দুধ শরীরের জন্য খুবই ভালো। দুধে থাকে ক্যালসিয়াম, প্রোটিন। শরীরে জলের ভারসাম্য বজায় রাখে। রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগেও এক গ্লাস দুধ খাওয়া ভালো। চিকেন ব্রেস্ট : চিকেন ব্রেস্টে থাকে প্রোটিন। যা পেশী সুগঠিত করতে সাহায্য করে। স্যালমন : স্যালমন মাছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন, প্রোটিন ও ওমেগা-৩ Continue reading শরীরকে হেলদি ও ফিট রাখতে ডায়েটে রাখুন এই ৫ খাবার

যে ৭টি লক্ষণ দেখে বুঝবেন আপনার ডিহাইড্রেশন হয়েছে

ডিহাইড্রেশনে মানুষ প্রায়ই ভোগেন। শরীরে যথেষ্ট পরিমাণে পানির পরিমাণ কমে গেলেই ডিহাইড্রেশনে ভুগতে হয়। ডিহাইড্রেশন হলে অনেক পরিমাণে পানি খেতে হয় এটি সবার জানা। কিন্তু ডিহাইড্রেশনের লক্ষণ কী কী হতে পারে তা জানেন? সাবধান হতে জেনে নিন ডিহাইড্রেশনের লক্ষণগুলো- ১) অনেক সময়ই আমরা এই কথাটা বলে থাকি ‘মাথা কাজ করছে না’। এটি ডিহাইড্রেশনের একটি উপসর্গ হতে পারে। সহজে কিছু ভুলে যাওয়া, কোন কাজে মনোনিবেশ না করতে পারা, অকারণে অতিরিক্ত ক্লান্ত লাগা এগুলি সবই হতে পারে শরীরে ফ্লুইডের পরিমাণ কম হলে। ডায়েটেশিয়ান জানিয়েছেন, “আপনি যথেষ্ট পরিমাণে ফ্লুইড না নিলে, তাঁর প্রভাব শরীরের উপর পড়ে। মানসিক ভাবেও দুর্বল লাগে”। ডিহাইড্রেশনের ফলে মাথার Continue reading যে ৭টি লক্ষণ দেখে বুঝবেন আপনার ডিহাইড্রেশন হয়েছে

কিডনি সুরক্ষায় যা খাবেন

কিডনি সুরক্ষায় এমন কিছু খাবারকে চিহ্নিত করা হয় যেগুলো স্বাস্থের জন্যও উপকারী। আমরা সবাই জানি সুষম খাদ্য আমাদের শরীরের জন্য কতোটা প্রয়োজন। পুষ্টি বিজ্ঞানীরা প্রতিনিয়তই নিত্যনতুন খাদ্যের বিভিন্ন দিক উন্মোচন করে চলেছেন। কিডনি সুরক্ষায় এমন কিছু খাবারকে চিহ্নিত করা হয় যেগুলো স্বাস্থের জন্যও উপকারী। খাবার গুলো হলো: আপেল বলা হয়ে থাকে প্রতিদিন একটি করে আপেল খেলে ডাক্তার থেকে দূরে থাকা যায়। নিয়মিত আপেল খাওয়ার অভ্যাস করলে তা কিডনির স্বাভাবিক কার্যক্রম বজায় রাখতে সাহায্য করে। এছাড়াও রক্তে কোলেস্টেরল কমাতে, হৃদরোগ এবং ক্যানসার প্রতিরোধেও এর ভূমিকা অনন্য। লাল আঙুর এতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণ ফ্লাভনয়েড, যা আপনার কিডনিকে রাখবে সদা তরুণ। এটি রক্ত Continue reading কিডনি সুরক্ষায় যা খাবেন

কোলন ক্যান্সার প্রতিরোধে বাদাম

সুস্থ থাকতে এবং শরীরে শক্তি বাড়াতে প্রতিদিনের ডায়েটে ফল, শাকসবজির পাশাপাশি বিভিন্ন রকম বাদাম খাওয়ার পরামর্শও দেন চিকিত্সকরা। যা শরীরের বিভিন্ন সমস্যা দূরে রাখতে সাহায্য করে। তবে বাদামের গুরুত্ব এবার আরও খানিকটা বেড়ে গেল। কারণ নতুন এক গবেষণা জানাচ্ছে, যে কোন ধরনের বাদাম কোলন ক্যান্সারের ঝুঁকি কমাতে সাহায্য করে। জার্মানির জেনা ইউনিভার্সিটির একদল গবেষকের মতে শরীরে রিঅ্যাকটিভ অক্সিজেন ডিটক্সিফাই করার স্বাভাবিক ক্ষমতা রাখে বাদাম। ফলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ে। আল্ট্রভায়োলেট রেডিয়েশন, কিছু রাসায়নিক ও খাবার মেটাবলিজমের কারণে শরীরে এই রিঅ্যাকটিভ অক্সিজেন তৈরি হয়। যা ডিএনএ-র গঠন নষ্ট করে ক্যান্সার কোষ তৈরি করে। তবে নতুন গবেষণায় দেখা গেছে বাদাম এই ক্যান্সার Continue reading কোলন ক্যান্সার প্রতিরোধে বাদাম