ঘুম থেকে উঠে এড়িয়ে চলবেন যে ৫টি কাজ

সকলেই চান যে সারাটা দিন ভাল কাটুক। আর সেই চাওয়াটা যদি সত্যি করতে হয়, তাহলে ঘুম থেকে উঠে পাঁচটি কাজ  ভুলেও করবেন না। ১। সকালে ঘুম থেকে উঠে কফি খাবেন না। কফি সাময়িক ভাবে শরীরকে চাঙ্গা করলেও পরে আলস্য এনে দেয়। ২। ‌ঘুম থেকে উঠে ধূমপান করবেন না। সে সময় শরীর শুদ্ধ বাতাস চায়। সে সময় ধূমপান করলে শরীরে মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে। ৩। সকালে ঘুম থেকে উঠে কোনও ভাবেই জিম করা উচিত নয়। বিজ্ঞানীরা বলছেন, সকালে ঘুম থেকে উঠে শরীরচর্চা যারা করেন তাদের রক্তচাপ সারাদিন কম থাকে। ফলে কাজ করার ইচ্ছে কমে যায়। ৪। কাজে বেরোনোর আগে ভারী প্রাতঃরাশ Continue reading ঘুম থেকে উঠে এড়িয়ে চলবেন যে ৫টি কাজ

কেন সকালে খালি পেটে গরম পানি পান করবেন?

পানি পানের উপকারিতা আমরা সবাই জানি। কিন্তু সেই পানি ঠাণ্ডা না হয়ে হালকা গরম হলে তা আমাদের শরীরের জন্য বেশি উপকারি। খাদ্য গ্রহণের পর ঠাণ্ডা পানি পান করলে খাদ্যের সাথে থাকা চর্বিগুলো জমিয়ে ফেলে। পৃথিবীর সবথেকে প্রচীন দুই চিকিৎসাশাস্ত্র, ভারতের আয়ুর্বেদ এবং চীনা ইউনানি চিকিৎসাবিদ্যা অনুসারে আমাদের শরীরের ভালো-মন্দ অনেকাংশেই নির্ভর করে কী ধরনের পানি খাওয়া হচ্ছে এবং কতটা পরিমাণে খাওয়া হচ্ছে তার ওপর। কারণ খেয়াল করে যদি দেখেন, তাহলে বুঝতে পারবেন আমাদের শরীরের সিংহভাগই পানি দিয়ে তৈরি। তাই তো পর্যাপ্ত পানি পান করা জরুরি। তবে বিষয়টা এখানেই থেমে থাকে না। প্রাচীন এবং আধুনিক, উভয় চিকিৎসা বিজ্ঞানই মেনে নিয়েছে ঠাণ্ডা Continue reading কেন সকালে খালি পেটে গরম পানি পান করবেন?

একসঙ্গে যেসব ফল খাওয়া উচিত নয়

স্বাস্থ্য রক্ষায় সঠিক খাবার নির্বাচন খুবই জরুরি। আবার অনেকে স্বাস্থ্য সচেতন ফাস্টফুড এড়িয়ে যান। কিন্তু আপনি জানেন কি, কিছু কিছু খাবার একসঙ্গে খাওয়া ফাস্টফুডের চেয়েও ক্ষতিকর হতে পারে? অনেকেই ফল খেয়ে পানি খান না, কেউ আবার রাতের বেলায় শাক খান না। এসব বিষয় কি আদৌ ঠিক, কীভাবেই বা এমন ধারণা চালু হলো? এ সম্পর্কে বিশেষজ্ঞরা কী বলেন। খাদ্য ও পুষ্টিবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটের প্রতিবেদনে জানানো হয়, ‘ফ্রিজে যত ফল-সবজি আছে সব কেটে, অল্প লেবুর রস আর লবণ ছিটিয়ে দিলেই তা স্বাস্থ্যকর হয়ে যাবে- এমন নাও হতে পারে।’ সালাদ বানানোর ক্ষেত্রে ফলকে ভাগ করতে হবে টক, মিষ্টি ও পানসে এই স্বাদ অনুযায়ী। Continue reading একসঙ্গে যেসব ফল খাওয়া উচিত নয়

গরমে জন্ডিসের আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি

প্রবল তাপে কিছুটা স্বস্তি দিচ্ছে বিভিন্ন ধরণের ফল,  লেবু দেওয়া ঠান্ডা জলের সরবত, বরফ দেওয়া রঙিন জল আর হরেক রঙের আইসক্রিম।  আর এই স্বস্তিই ডেকে আনছে বিপদ। চিকিৎসকেরা জানান, গরমে পানিবাহিত রোগে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি থাকে। এ বছর তা আরও বেড়েছে।  সঙ্গে সর্দি-কাশি-জ্বর লেগেই রয়েছে। শিশু-রোগ বিশেষজ্ঞেরা জানিয়েছেন, একেবারে ছোটদের জন্ডিসের প্রকোপ তেমন নেই।  কারণ, তাদের বেশির ভাগেরই হেপাটাইটিস এ এবং ই প্রতিষেধক টিকাকরণ হয়েছে।  সমস্যা বেশি কিশোর-কিশোরীদের মধ্যে।  কারণ, বছর দশেক আগেও হেপাটাইটিস এ এবং ই-এর টিকাকরণ নিয়ে বেশি সচেতনতা ছিল না।  তা ছাড়া, এই বয়সি ছেলেমেয়েদের মধ্যে স্কুল থেকে ফেরার পথে রঙিন সরবত, আইসক্রিম খাওয়ার প্রবণতা সব চেয়ে Continue reading গরমে জন্ডিসের আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি

দিনে নিয়ম করে ১৫ মিনিট হাসুন

হাসতে ভুলে গেছেন? টেনশন, চাপ আপনার হাসি শুষে নিয়েছে? মন খুলে হাসুন। যত পারেন হাসুন। প্রাণ খুলে হাসুন। যত হাসবেন, তত বাড়বে আয়ু। হার্ট থাকবে চাঙ্গা। এমনটাই দাবি বিশেষজ্ঞদের। জন হপকিন্স ইউনিভার্সিটি মেডিক্যাল স্কুলের সাম্প্রতিক গবেষণা বলছে, হাসলে আয়ু বাড়ে। হার্ট ভাল থাকে। ওজন কমায়। শরীরের প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। হজম ভাল হয়। ভাল থাকে ফুসফুস। শ্বাস-প্রশ্বাস স্বাভাবিক হয়। ব্যথা কমায়। নরওয়ের সাম্প্রতিক গবেষণা বলছে, যাঁদের সেন্স অফ হিউমার প্রখর, যাঁরা সবসময় আশাবাদী, তাঁরা বাকিদের থেকে ৫৫ শতাংশ বেশি বাঁচেন। দিনে ১৫ মিনিট হাসুন। ফলে, শরীরে হ্যাপি হরমোনের ক্ষরণ হয়। ডিপ্রেশন কমে। সম্পর্কের উন্নতি হয়। সম্পর্ক ভাল থাকে। মন খুলে হাসলে Continue reading দিনে নিয়ম করে ১৫ মিনিট হাসুন

স্মার্ট ও সফল হওয়ার সংগ্রামে জয়ী হওয়ার কৌশল!

জানাচ্ছি স্মার্ট ও সফল হওয়ার জন্য আটটি বৈজ্ঞানিক কৌশল। জেনে নিন এখনই। কারণ এগুলো আপনি অনুসরণ না করলেও অন্য কেউ হয়তো আপনার উপরই প্রয়োগ করছে। ১। ভালভাবে চোখ খোলা রাখা: ‘জার্নাল অফ এক্সপেরিমেন্ট সাইকোলজি’তে প্রকাশিত এক গবেষণায় বলা হয়, যারা চোখের পাতা নামিয়ে রাখে বা চোখ অনেকটা বন্ধ রাখে তাদেরকে কম বুদ্ধিমান মনে করা হয়। তাদের তত্ত্বানুসারে, চোখ বন্ধ রাখা বিষন্নতা অথবা অবসাদকে চিহ্নিত করে। যে দুটো জ্ঞানের পরিধী প্রকাশে বাধা দেয়। ২। ওজন কমা: একটি চেক গবেষণায় প্রমাণিত হয় সরু মুখ, লম্বা নাক এবং পাতলা থুতনির সমন্বিত অবস্থা বুদ্ধিমত্তা এবং আকর্ষণীয়তা প্রমাণ করে। এসব অবস্থায় ওজনহীনতা প্রমাণিত হয় বলে Continue reading স্মার্ট ও সফল হওয়ার সংগ্রামে জয়ী হওয়ার কৌশল!

যে পাতার রসে কিডনির পাথর গলে যাবে

তুলসী সবুজ রঙের গুল্মজাতীয় একটি উপকারী উদ্ভিদ। এ গাছের পাতায় বহু রোগ সারানোর উপকারী গুণ রয়েছে। তুলসীপাতার রস বা চা প্রতিদিন একগ্লাস করে পান করলে, আমাদের কিডনিতে পাথর হওয়ার শঙ্কা কমে যায়। আর যদি কিডনিতে পাথর জমে তাহলে তুলসী পাতার রস টানা ৬ মাস পান করলে সেই তা গলে প্রস্রাবের সঙ্গে বেরিয়ে যায়। এছাড়া সর্দি, কাশি, কৃমি, প্রস্রাবে জ্বালা কমায়, হজমকারক ও কফ গলাতে দারুণ কাজ করে তুলসীপাতা। এটি ক্ষত সারাতে এন্টিসেপটিক হিসেবেও কাজ করে। তুলসিপাতা দিয়ে চা ও মিশ্রণ তৈরির কয়েকটি প্রস্তুত প্রণালী পাঠকদের সামনে তুলে ধরা হলো: তুলসী পানি : উপকরণ : দুই কাপ পানি ও কয়েকটি পাতা। Continue reading যে পাতার রসে কিডনির পাথর গলে যাবে

হার্ট ভালো রাখতে যা মেনে চলা উচিত

সুস্থ থাকার জন্য ও হার্টের স্বাস্থ্য ভাল রাখতে মানসিক সুস্থতা ও আবেগের উপর নিয়ন্ত্রণ রাখাও গুরুত্বপূর্ণ। তিনটি ইমোশন কন্ট্রোল করলেই সুস্থ থাকতে পারে হার্ট। ১) রাগ গবেষকরা জানাচ্ছেন অতিরিক্ত রাগ বা রাগ পুষে রাখার কারণে হার্ট অ্যাটাক পর্যন্ত হতে পারে। রাগের মতো নেগেটিভ ইমোশন আমাদের অস্থির করে তোলেও রক্তচাপ বাড়িয়ে দেয়। ফলে রক্ত জমাট বাঁধার সম্ভাবনা বাড়ে। তাই কিছু এক্সারসাইজের পাশাপাশি রাগ নিয়ন্ত্রণ করলে রক্তে ভাল কোলেস্টেরলের মাত্রা বাড়ে, রক্তচাপ কমে ও হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি কমে। ২) অবসাদ হার্টের বিভিন্ন সমস্যার সঙ্গে অবসাদ, উৎকণ্ঠা, স্ট্রেসের সম্পর্ক খুব গভীর। অনেক দিন ধরে অবসাদে ভুগলে অবশ্যই হার্টের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করান বা হার্টের Continue reading হার্ট ভালো রাখতে যা মেনে চলা উচিত

শরীরকে হেলদি ও ফিট রাখতে ডায়েটে রাখুন এই ৫ খাবার

শরীরকে হেলদি ও ফিট রাখতে রোজ ডায়েটে এই ৫টি খাবার থাকলেই হবে। এমনই বলছেন বিশেষজ্ঞরা। আপেল: আপেলে থাকে প্রয়োজনীয় ফাইবার, কার্বস ও ভিটামিন। যা শরীরকে হেলদি ও ফিট রাখে। ডিম : ডিমে থাকে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন। দিনের যেকোনও সময় আপনি ডিম খেতে পারেন। শরীরে কোষ মেরামতিতে সাহায্য করে ডিম। দুধ : সকালে এক গ্লাস দুধ শরীরের জন্য খুবই ভালো। দুধে থাকে ক্যালসিয়াম, প্রোটিন। শরীরে জলের ভারসাম্য বজায় রাখে। রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগেও এক গ্লাস দুধ খাওয়া ভালো। চিকেন ব্রেস্ট : চিকেন ব্রেস্টে থাকে প্রোটিন। যা পেশী সুগঠিত করতে সাহায্য করে। স্যালমন : স্যালমন মাছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন, প্রোটিন ও ওমেগা-৩ Continue reading শরীরকে হেলদি ও ফিট রাখতে ডায়েটে রাখুন এই ৫ খাবার

শিশুর স্বাস্থ্য সুরক্ষায় কিশমিশের ভূমিকা

কার্বোহাইড্রেট , পটাশিয়াম , ক্যালশিয়াম , ম্যাগনেশিয়াম , লোহা প্রভৃতি সমৃদ্ধ কিশমিশ সত্যিই দারুণ উপকারী৷ এটি কিন্ত্ত আপনার শিশুর স্বাস্থ্যের জন্যও ভালো এই কিসমিস৷ আমাদের আজকের এই প্রতিবেদনে জেনে নিন শিশুর স্বাস্থ্য বিকাশে কিশমিশ কিভাবে ভুমিকা রাখতে পারে- ১। কোষ্ঠ কাঠিন্যের সমস্যায়- কোষ্ঠ কাঠিন্যের সমস্যা দূর হয় কিশমিশে। কারণ এতে প্রচুর পরিমাণে তন্তু থাকে৷ ফলে শিশুর কোষ্ঠ কাঠিন্যের সমস্যা হয় না৷ ছোটবেলায়ও এই সমস্যা হতে পারে৷ সেক্ষেত্রে কিশমিশ পানিটে ফুটিয়ে সেটাকে থেঁতো করে মিহি করে নিতে হয়৷ ফলে কিশমিশ নরম হয়ে যায় এবং তা বাচ্চারা সহজেই খেতে পারে৷ ২। খনিজের প্রয়োজন মেটায়- কিশমিশে প্রচুর খনিজ থাকে। এই খনিজ খুদের পুষ্টি Continue reading শিশুর স্বাস্থ্য সুরক্ষায় কিশমিশের ভূমিকা